1. info@dailyajkerbangla.com : Developer :
  2. hairajmaji28@gmail.com : Md Hairaj Maji : Md Hairaj Maji
সোমবার, ২৮ নভেম্বর ২০২২, ০৪:২৪ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
মনগড়া নতুন সদস্য বানিয়ে বরগুনা রেডক্রিসেন্ট ইউনিটের পাতানো নির্বাচনের পায়তারা ঘর ভাংচুর করে জমি দখল চেষ্টার অভিযোগে সংবাদ সম্মেলন জমি দখলের প্রতিবাদ করায় মিথ্যা মামলা দিয়ে হয়রানি আমতলী উপজেলা আওয়ামী লীগের দুর্দিনের পরীক্ষিত নেতা গোলাম সরোয়ার ফোরকানকে সভাপতি চায় তৃণমূল! তালতলীতে দোকান ভাঙচুর করে মালামাল লুট করার অভিযোগ আজ শাফি হোসেন চিশতী ইউশার ৫ম মৃত্যুবার্ষিকী আমতলীর রাজনীতি এখন কোন পথে? আমতলীতে স্বেচ্ছাসেবকলীগ সভাপতিকে কুপিয়ে আহত করেছে ছাত্রলীগ। তালতলীতে ভালো খাবারের অঙ্গীকার নিয়ে আলিফ চায়নিজ এন্ড রেস্তোরাঁর শুভ উদ্বোধন। আমতলী পৌর শহরে টোল আদায় স্থগিত করেছে হাইকোট

শ্রীলঙ্কার নতুন প্রধানমন্ত্রী রনিল বিক্রমাসিংহে

নিজস্ব প্রতিবেদক
  • প্রকাশের সময় : বৃহস্পতিবার, ১২ মে, ২০২২
  • ৮৭ বার পড়া হয়েছে

বিদেশ ডেস্ক

প্রেসিডেন্ট কার্যালয়ে রনিল বিক্রমাসিংহে

শ্রীলঙ্কার নতুন প্রধানমন্ত্রী হিসেবে অবশেষে শপথ নিলেন রনিল বিক্রমাসিংহে। বৃহস্পতিবার পাঁচবারের সাবেক এই প্রধানমন্ত্রী ও শ্রীলঙ্কার ইউনাইটেড ন্যাশনাল পার্টির (ইউএনপি) নেতাকে শপথ পড়ান প্রেসিডেন্ট গোটাবায়া রাজাপাকসে। এক প্রতিবেদনে এ খবর জানিয়েছে সংবাদমাধ্যম এনডিটিভি।

মাহিন্দা রাজাপাকসে গত সোমবার পদত্যাগ করার পর তার স্থলাভিষিক্ত হলেন তিনি। এর আগে বুধবার সন্ধ্যায় প্রেসিডেন্ট গোটাবায়া রাজাপাকসের সঙ্গে রুদ্ধদ্বার বৈঠক করেন বিক্রমাসিংহে। এরপরই তিনি নতুন প্রধানমন্ত্রী হচ্ছেন বলে খবর ছড়িয়ে পড়ে।

রনিল বিক্রমাসিংহের জন্ম ১৯৪৯ সালের ২৪ মার্চ। সিলন বিশ্ববিদ্যালয় থেকে আইন বিষয়ে পড়াশোনা শেষ করেন তিনি। সত্তরের দশকের মাঝামাঝি সময়ে তিনি রাজনীতিতে যোগ দেন।

প্রেসিডেন্ট গোটাবায়ার পদত্যাগের দাবিতে দেশজুড়ে তীব্র আন্দোলন চলে আসছে শ্রীলঙ্কায়। তবে ক্ষমতা ছাড়তে অস্বীকৃতি জানিয়ে বুধবার তিনি বলেন, ‘আমি এমন একজন প্রধানমন্ত্রীর নাম দেবো যিনি সংসদে সংখ্যাগরিষ্ঠ ও জনগণের আস্থা অর্জন করবেন।’ এরমধ্যেই বৃহস্পতিবার প্রধানমন্ত্রী হিসেবে রনিল বিক্রমাসিংহেকে শপথ পড়ালেন প্রেসিডেন্ট গোটাবায়া।

সহিংস আন্দোলনের জেরে বাধ্য হয়ে গত সোমবার মাহিন্দা রাজাপাকসে প্রধানমন্ত্রীর পদ থেকে সরে দাঁড়ান। তার সমর্থকেরা সরকারবিরোধী বিক্ষোভকারীদের ওপর চড়াও হওয়ার পর এই সিদ্ধান্ত নেন তিনি।

ভয়াবহ অর্থনৈতিক সংকটে থাকা শ্রীলঙ্কায় কয়েক দিনের সহিংসতায় অন্তত নয় জন নিহতের পাশাপাশি দুই শতাধিক আহত হয়েছেন। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে জারি করা হয় কারফিউ। নিরাপত্তা বাহিনীকে বিশেষ ক্ষমতা দিয়ে দাঙ্গাকারীদের দেখামাত্র গুলি চালানোর নির্দেশ দেওয়া হয়। বৃহস্পতিবার সকালে ছয় ঘণ্টার জন্য কারফিউ প্রত্যাহার করেছে দেশটির সরকার।

সংবাদটি শেয়ার করুন

এই বিভাগের আরো খবর
All Rights Reserved © 2022 Daily Ajker Bangla
Developed By :: Sky Host BD